মোঃ মেহেদী হাসান, পুঠিয়া (রাজশাহী): রাজশাহীর পুঠিয়া উপজেলার তারাপুরে মোবাইল ফোনের মেমোরি চুরির অভিযোগে আরিফুল ইসলাম (১২) নামের এক শিশুকে গাছের সঙ্গে বেঁধে নির্যাতনের ঘটনা ঘটনাছে। নির্যাতনের শিকার আরিফুল ইসলাম উপজেলার তারাপুর গ্রামের মহিরুল ইসলামের ছেলে। এব্যাপারে আরিফুলের পিতা মহিরুল ইসলাম বাদী হয়ে পুঠিয়া থানায় দুই জনকে আসামী করে একটি মামলা দায়ের করেছে। মামলার পুলিশ দুই জনকে আটক করেছে।

এলাকাবাসী সূত্রে জানাযায়, গত মঙ্গলবার দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে উপজেলার তারাপুর বাজারের ঢাকা-রাজশাহী মহাসড়কের সামনে আরিফুলকে গাছের সঙ্গে বেঁধে শারীরিক নির্যাতন চালায় একই গ্রামের আসফার আলীর ছেলে এরশাদ আলী ও বরুমোল্লার ছেলে শুভ। এ সময় পবা হাইওয়ের (শিবপুরহাট ফাঁড়ি) টহল পুলিশ আরিফুল ইসলামকে আহত অবস্থায় উদ্ধার করে পুঠিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্রো ভর্তি করেন। খবর পেয়ে আরিফুলের পিতা মহিরুল ইসলাম বাদী হয়ে মঙ্গলবার রাতেই এরশাদ আলী ও শুভোর বিরুদ্ধে থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। পুলিশ রাতেই নির্যাতনকারী দু’জনকে আটক করেছেন।

এ ব্যাপারে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ও উপ-পরিদর্শক আবুল খায়ের পিন্টু ঘটনা নিশ্চিত করে বলেন, শিশু নির্যাতনের অভিযোগে দু’জনকে আটক করা হয়েছে।

Share